ধর্ম

বিয়ে নিয়ে সাতটি আমল

আপনার হয়তো এখনো বিয়ে হয়নি। কিন্তু আপনি খুব দ্রুতই বিয়ে করতে চাচ্ছেন। প্রথমত আপনাকে মনে রাখতে হবে আল্লাহপাক সব পারেন। অনেক ছেলে-মেয়ে এমন আছে যারা খুব দ্রুতই বিয়ের জন্য কাঙ্খিত আহবান পেয়েছে এবং বিয়ে করে ফেলেছেন। কিন্তু অনেক ছেলে-মেয়ে আবার এমন আছে যারা বিবাহের বিষয়ে কঠিন সময় পার করছে অর্থাৎ কাঙ্খিত প্রস্তাব পাচ্ছেন না। তারা নিন্মে উল্লেখিত সাতটি আমল নিয়মিত করুন। আশা করা যায়, আল্লাহপাক আপনার বিয়ের জন্য একটি সুন্দর ব্যবস্থা করে দিবেন।

১ . সুরা ইয়াসীন পড়ুন : সুরা ইয়-সীন হচ্ছেন কুরআনের হৃদয়। এই সুরা হচ্ছে অতি বরকতপূর্ণ একটি সুরা। নিয়মিত সুরা ইয়া-সীন পড়লে যে কোনো সমস্যার সমাধান যাবে।

২ . নিয়মিত সুরা কসাসের ২৪ নং আয়াত ও সুরা দুহা পড়ুন : নিয়মিত সুরা কসাসের ২৪ নং আয়াত পড়ুন। কেননা মুসা (আ.) যখন একাকিত্ববোধ করেছেন তখন এই দোআ পড়েছেন। এবং আল্লাহপাক তার একাকিত্ব দূর করে দিয়েছেন। অনেক ইসলামিক স্কলার বলেছেন, কোনো ছেলে যদি দিনে ১০০ বার সুরা কসাসের ২৪ নং আয়াত পাড়ে তাহলে খুব অল্প সময়ের মধ্যে সে তার পছন্দের পাত্রী পেয়ে যাবে। আর কোনো মেয়ে যদি ফজরের পরে ১১বার সুরা দুহা পড়ে তাহলে সেও অল্প দিনের মধ্যে পছন্দের পাত্র পেয়ে যাবে।

৩. আল্লাহপাকে বেশি বেশি স্মরণ করুন : ১১ বার দুরূদ শরীফ এর পরে ৩১৩ বার আল্লাহর নাম এর পরে আবার ১১বার দুরূদ শরীফ এভাবে ৪১দিন প্রত্যেক নামাজের পরে যদি কেউ পড়ে তাহলে অবশ্যই সে তার বিবাহের জন্য একটি সুন্দর প্রস্তাব পাবে।

৪. সুরা তাওবার ১২৯ নং আয়াত নিয়মিত পড়ুন : বিষয়টি হচ্ছে প্রত্যেক দিন পাঁজ ওয়াক্ত নামাজের পরে ১৯ বার বিসমিল্লাহ, ১১০০ বার সুরা তাওবার ১২৯ নং আয়াত, ১০০ বার দুরূদ শরীফ ও শেষে আবার ১৯ বার বিসমিল্লাহ। কেউ যদি নিজের অথবা নিজের ছেলে-মেয়ের জন্য এভাবে নিয়মিত পড়ে তাহেল অবশ্যই এর কার্যকারিতা দেখতে পাবে।

৫. সুরা মারইয়াম পড়ুন : দিনের যে কোনো এক নামাজের পরে একবার সুরা মারইয়াম পড়ুন। এই আমলটি যে কোনো মেয়েও করতে পারে আবার মেয়ের মাও করতে পারেন।

৬. নিয়মিত তাসবিহে ফাতেমি পড়ুন : দিনের যে কোনো সময় দুই রাকাত নামাজ পড়ুন এরপরে ১১বার দুরূদ শরীফ পড়ুন এর পরে তাসবিহে ফাতেমি পাঠ করুন।

তাসবিহে ফাতেমি : ৩৪ বার আল্লাহুক আকবার। ৩৩ বার আল হামদু লিল্লাহ। আর ৩৩ বার সুবহানাল্লাহ পড়ুন। আশা করা যায় বিবাহ সংক্রান্ত যে কোনো সমস্যার অতিদ্রুত সমাধান হয়ে যাবে।

৭. নিয়মিত সুরা মুয্যাম্মিল পড়ুন : কোনো মেয়ের যদি দিন দিন বয়স বাড়তে থাকে এবং বিয়ের জন্য পাত্র খুঁজে না পায় তাহেল মা-বাবার মধ্যে যে কোনো একজন জুমার নামাজের পরে দুই রাকাত নামাজ আদায় করবেন এবং ২১ বার এই সুরা পাঠ করবেন আশা করা যায় বিবাহ সংক্রান্ত যে কোনো সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে। (সূত্র : দ্য ইসলামিক ইনফরমেশন.কম)

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Close