খেলাধুলা

আবারও লজ্জার রেকর্ড গড়লেন বিরাট কোহলি

একই স্টেডিয়ামে খেলা, স্রেফ ফর্ম্যাটটা আলাদা। ২০২১-র প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ইংল্যান্ডের কাছে ৮ উইকেটে হারলো ভারত। মাত্র ১৫.৩ ওভারে ম্যাচ শেষ করে ফেলল ইংরেজরা। আর লজ্জার রেকর্ড গড়লেন ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি।

ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে পিছিয়ে পড়েও দূরন্ত কামব্যাক। আহমেদাবাদের নরেন্দ্র মোদি স্টেডিয়ামে ভারতীয় স্পিনারদের দাপটে ধরাশায়ী হয় প্রতিপক্ষ। দ্বিতীয় ইনিংসে ৫টি করে উইকেট নিয়েছিলেন অক্সার প্যাটেল ও রবিচন্দ্রন অশ্বিন। এক ইনিংস ও ২৫ রানে চতুর্থ টেস্টে জিতেছিলেন বিরাটরা। এতে সিরিজ জয়ই শুধু নয়, ভারত পৌঁছে যায় বিশ্ব টেস্টে চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালেও। কিন্তু টি-টোয়েন্টি সিরিজের শুরুতেই ছন্দপতন সেই দলের।

অধিনায়ক বিরাট কোহলি জানিয়েছিলেন, কেএল রাহুল ও রোহিত শর্মা ওপেন করবেন। সেক্ষেত্রে বেঞ্চে থাকবেন শিখর ধাওয়ান। শেষপর্যন্ত রাহুল ওপেন করলেও, রোহিত শর্মাকে বিশ্রাম দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় টিম ম্যানেজমেন্ট। রোহিতের বদলে সুযোগ পান ধাওয়ান। কিন্তু বিশ্বকাপের মহড়া ম্যাচে ব্যর্থ হলেন দু’জনেই। রান পেলেন না বিরাটও। ফলে যা হওয়ার, তাই হলো।

ভারতের ইনিংস শেষ হয়ে গেল মাত্র ১২৪ রানে। টপ স্কোরার শ্রেয়াস আইয়ার (৬৭) ছাড়া দশ রানের গণ্ডি পেরোন কেবল ঋষভ পন্ট আর হার্দিক পাণ্ডিয়া। জবাবে ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই দাপট ছিল ইংলিশদের। প্রায় ৪ ওভার বাকি থাকতেই এবং মাত্র ২ উইকেট হারিয়েই টার্গেট ছুঁয়ে ফেলে ইংরেজরা। রয় ৪৯, বাটলার ২৮ এবং বেয়ারস্টো ২৬ রানের ইনিংস খেলেন।

এদিকে, ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে হেরে লজ্জার রেকর্ড গড়লেন অধিনায়ক বিরাট কোহলি। ভারতের অধিনায়ক হিসেবে ১৪ বার শূন্য রানে আউট হলেন তিনি। এর আগে এই রেকর্ড ছিল কেবল সৌরভের দখলে।

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Close