আমাদের কমিউনিটি

পেটিকোট লেন মার্কেট ও হাই স্ট্রিটে সাংস্কৃতিক কার্যক্রমের জন্য ৯০ হাজার পাউন্ডের অনুদান

টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিল বারার ওয়েন্টওর্থ স্ট্রিটের হাইস্ট্রিটস্ হেরিটেজ একশন জোন এর অংশ হিসেবে পেটিকোট লেন মার্কেট সহ হাই স্ট্রিটে কমিউনিটির নেতৃত্বে সাংস্কৃতিক কার্যক্রম পরিচালনার লক্ষ্যে ৯০ হাজার পাউন্ডের হিস্টোরিক ইংল্যান্ড গ্র্যান্ট পাওয়ার কথা ঘোষনা করেছে। টয়েনবি হল এবং অন্যান্য স্থানীয় শিল্প-সংস্কৃতিক বিষয়ক অংশিদারদের সাথে মিলে কাউন্সিলের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় এই সাংস্কৃতিক কর্মকান্ড পরিচালিত হবে।

এই কর্মসূচির অংশ হিসেবে, স্থানীয় মার্কেট স্টল মালিক, ব্যবসায়ি, সৃজনশীল কাজের সাথে জড়িত ব্যক্তিবর্গ এবং বাসিন্দাদের সমন্বয়ে গঠিত সিদ্ধান্ত গ্রহণকারী কমিউনিটি গ্রুপ পেটিকোট লেনে দ্বি-মাসিক ও বার্ষিক সাংস্কৃতিক উৎসবের অনুষ্ঠানের সার্বিক দিক চূড়ান্তকরণ ও বাস্তবায়ন করবে। দশকের পর দশক ধরে অসংখ্য সংস্কৃতি-কৃষ্টির কমিউনিটির কারণে গড়ে ওঠা এই এলাকার অনন্য সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য ও কৃষ্টিকে উদযাপন ও উপস্থাপন করা হবে।

অভিজ্ঞ কালচারাল কনসোর্টিয়ামের সহযোগিতায় কর্মসূচিগুলো চূড়ান্ত করা হবে, যা পেটিকোট লেন এবং এর মার্কেট সম্পর্কে জনসচেতনতা বাড়াতে এবং এখানে মানুষের পদচারনা বাড়াতে, এই স্থানটি আবিস্কার করতে ও ব্যবহারে সাহায্য করবে। একই সাথে টাওয়ার হ্যামলেটস্ কাউন্সিলের হাই স্ট্রিট এন্ড টাউন সেন্টারস টিম স্থানীয় এলাকার দোকানপাটের সম্মুখভাগের সৌন্দর্য্য বৃদ্ধিকরণ ও  লেডেন স্ট্রিট টয়লেটকে সংস্কার করছে, যে কাজে আর্থিক সহায়তা দেয়া হচ্ছে হাই স্ট্রিটস্ হেরিটেজ এ্যাকশন জোন স্কীম থেকে।

আর্টস কাউন্সিল ইংল্যান্ড এবং ন্যাশনাল লটারি হেরিটেজ ফান্ডের সাথে অংশিদারিত্বের ভিত্তিতে হিস্টোরিক ইংল্যান্ডের নেতৃত্বে গৃহিত ৪ বছর মেয়াদি হাই স্ট্রিটস্ এ্যাকশন জোন’ এর কালচারাল প্রোগ্রামের অংশ হিসেবে এই উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। বারার হাই স্ট্রিটগুলোকে আরো আকর্ষনীয় এবং বসবাস, কাজ ও সময় কাটানোর জন্য প্রাণবন্ত স্থান হিসেবে গড়ে তোলাই এই কালচারাল প্রোগ্রামের লক্ষ্য। ওয়েন্টওর্থ স্ট্রিট হচ্ছে একটি সংরক্ষিত এলাকা, এটি সহ ইল্যংান্ডের ৬০টিরও বেশি হাই স্ট্রিট তাদের কালচারাল প্রোগ্রামের জন্য ৬ মিলিয়ন পাউন্ডের একটি তহবিল ভাগাভাগি করবে।

এ প্রসঙ্গে টাওয়ার হ্যামলেটসের মেয়র জন বিগস বলেন, আমরা আগামী তিন বছরের সাংস্কৃতিক কর্মসূচিকে সহায়তা করতে পেরে এবং ওয়েন্টওর্থ স্ট্রিটের সমৃদ্ধ সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যকে উদযাপনের এই সুযোগটি গ্রহণ করতে পেরে আমরা আনন্দিত। এই এলাকার রয়েছে অবিশ্বাস্য ইতিহাস এবং এই বিনিয়োগ যাতে আমাদের স্থানীয় কমিউনিটির জন্য সুফল বয়ে আনে, তা নিশ্চিত করতে আমরা আমাদের সকল পার্টনার, বাসিন্দা ও ব্যবসায়ি সম্প্রদায়ের সাথে মিলে কাজ করে যাবো।

টয়েনবি হলের কমিউনিটি সার্ভিসেস এন্ড কালচারাল প্রোগ্রাম ম্যানেজার স্যাম ক্রসবি বলেন, পেটিকোট লেন এলাকায় বসবাস, কাজ ও লেখাপড়ার সূত্রে অবস্থানকারীদের ঐতিহ্য উদযাপন এবং বিশ্বমানের সাংস্কৃতিক কর্মসূচি গ্রহণ ও বাস্তবায়নে সম্পৃক্ত থাকতে টয়েনবি হল অধীর আগ্রহের সাথে অপেক্ষা করছে।

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Close